অধ্যক্ষের বক্তব্য


মোহম্মদ আব্দুর রশীদ মল্লিক

অধ্যক্ষের বাণী

রাজশাহী পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের পক্ষ থেকে ছাত্র-ছাত্রী, শিক্ষক, অভিভাবক এবং শুভানুধ্যায়ী সবাইকে আন্তরিক শুভেচ্ছা জ্ঞাপন করছি। পরম করুণাময় আল্লাহ্‌পাকের কাছে গভীর কৃতজ্ঞতা চিত্তে শুকরিয়া আদায় করছি যে, তাঁর অসীম কৃপায় আমি অত্র ইন্সটিটিউটের অধ্যক্ষ পদে নিয়োগ প্রাপ্ত হয়ে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটির সার্বিক মান উন্নয়নের প্রচেষ্টা চালানোর সুযোগ পেয়েছি। “শিক্ষাই জাতির মেরুদণ্ড” এবং সকল উন্নতি ও প্রগতির প্রথম শর্ত। তাই জাতি হিসেবে এ শর্ত পূরণ করা আমাদের গুরুদায়িত্ব । আমি আশা করি অত্র ইন্সটিটিউটের সংশ্লিষ্ট সকলের সহযোগিতা ও আন্তরিকতায় এ মহান দায়িত্ব সততার সাথে পালনে সক্ষম হবো।

 

ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার প্রত্যয়ে বর্তমান সরকারের ভিশন ২০২১ এবং ভিশন-২০৪১ বাস্তবায়ন তথা দারিদ্র বিমোচন, কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টি, উৎপাদনশীলতা বৃদ্ধি এবং উন্নত দেশগড়ার লক্ষ্যে কারিগরি ও বৃত্তিমূলক শিক্ষা একান্ত প্রয়োজন। করিগরি শিক্ষা ছাড়া অধিক জনসংখ্যাকে জনসম্পদে রূপান্তর করা অসম্ভব । বিজ্ঞান ও তথ্য প্রযুক্তির জ্ঞান এবং বাস্তব সম্মত মাধ্যম হিসেবে কারিগরি শিক্ষার বিকল্প নেই। শিক্ষা মানুষকে আলোকিত করে । সে আলোকে প্রযুক্তি শিক্ষা ও সৃজনশীলতার চিরন্তন আবেদন সামনে রেখে বহিঃবিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে প্রতিষ্ঠানে নৈতিক ও মানবিক মূল্যবোধ উজ্জীবিত করতে আমি সদা প্রস্তুত। তদুপরি, শিক্ষার্থীদের ফলাফলের মান উন্নয়নে শিক্ষার্থী, শিক্ষক ও অভিভাবকের সমন্বিত সহযোগিতা প্রয়োজন। এ লক্ষ্য বাস্তবায়নে অধ্যক্ষ হিসেবে আমি এবং আমার সহকর্মীবৃন্দ দৃঢ় প্রতিজ্ঞ।

 

১৯৬৩ সালে প্রায় ১৪.৭ একর জমির উপরে প্রতিষ্ঠিত পদ্মা বিধৌত সবুজ পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন মনোরম পরিবেশে ও শোভনীয় দালান কোঠায় সজ্জিত কারিগরি শিক্ষার ঐতিহ্যবাহী বিদ্যাপীঠ,  রাজশাহী পলিটেকনিক ইন্সটিটিউট। আমাদের এই প্রতিষ্ঠানের সর্বজনীন উন্নতি ও ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা রূপায়নে গঠনমূলক সমালোচনা, সুশীল সমাজের মূল্যবান পরামর্শ এবং সহযোগিতা নিয়ে সম্মিলিত প্রচেষ্টার মাধ্যমে ইন্সটিটিউটটিকে একটি সমৃদ্ধ ও গতিশীল, আদর্শ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তুলতে চাই। এই প্রত্যয়ই হোক আগামীর পথচলা।